রথিশ হত্যা মামলায়‘স্ত্রী’র’মৃত্যুদণ্ড

97

রংপুরের খবরঃ রংপুরের আইনজীবী রথিশচন্দ্র ভৌমিক বাবুসোনাকে হত্যা মামলায় তার স্ত্রী দীপা ভৌমিককে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। আজ মঙ্গলবার জ্যেষ্ঠ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক এ বি এম নিজামুল হক এ রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার আগে কড়া পুলিশ পাহারায় রথিশের স্ত্রী দীপা ভৌমিক ওরফে স্নিগ্ধা সরকারকে আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় রংপুর আইনজীবী সমিতির শতাধিক সদস্য আদালতে ছিলেন।

রথিশ হত্যা মামলায় মোট ৩৭ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়। পরে গত চলতি বছরের ২১ জানুয়ারি উভয়পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে  আজ মঙ্গলবার রায় ঘোষণার দিন ধার্য করেন আদালত।

এ মামলার চার্জশিটভুক্ত দুই আসামির মধ্যে একমাত্র জীবিত আছেন নিহত রথিশের স্ত্রী দীপা।তার প্রেমিক কামরুল ইসলাম গত বছরের ১০ নভেম্বর কারাগারে বন্দি থাকা অবস্থায় মারা যান।পরে জানা যায়, গলায় চাদর পেঁচিয়ে তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১৮ সালের ২৯ মার্চ নিখোঁজ হন আইনজীবী রথিশচন্দ্র ভৌমিক।  এ ঘটনায় সদর থানায় একটি মামলা করা হলে তদন্তে উঠে আসে রথিশের হত্যার কথা। পরে স্ত্রী দীপা ও তার প্রেমিক কামরুলের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি অনুযায়ী, ৩ এপ্রিল একটি নির্মাণাধীন বাড়িতে পুঁতে রাখা রথিশের লাশ উদ্ধার করা হয়।

২০১৮ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলার চার্জশিট জমা দেওয়া হয়। এতে পুলিশ অভিযোগ করে, পরকীয়া প্রেমের জেরে আসামিরা রথিশকে হত্যা করে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here