ভারতকে হারিয়ে ইতিহাস গড়তে তৈরি বাংলাদেশ

    • ইতিহাস গড়তে আর এক কদম বাকি। একটা মাত্র ম্যাচ, জিতলেই প্রথমবারের মতো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের সেই ‘সোনার হরিন’ ধরা দেবে হাতে। তেমন এক লড়াইয়ে বুধবার সন্ধ্যায় ভারতের মুখোমুখি বাংলাদেশ নারী ফুটবল দল।
    সাফ ফুটবলে মেয়েদের সাফল্য মন্দ নয়। গত তিন আসরে দু’বার সেমি ফাইনালে খেলেছে বাংলাদেশ। অবশ্য প্রাপ্তি বলতে এটুকুই! ছেলেদের সাফেও সাফল্য নেই দীর্ঘদিন ধরে। সেই ২০০৩ সালের পর শিরোপা জেতা হয়নি। ঠিক এ অবস্থায় শিলিগুড়ির কাঞ্চনজঙ্ঘা স্টেডিয়ামে সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে ভারতের প্রতিপক্ষ বাংলাদেশের মেয়েরা। স্বাগতিকদের বিপক্ষে কঠিন লড়াইয়ে জিতে শিরোপা নিয়ে দেশে ফিরতে চায় সাবিনা খাতুনের দল।

    অবশ্য লড়াইটা যে সহজ হবে না সেটা ভাল করেই জানে বাংলাদেশ। কেননা, ভারত তিনবারের চ্যাম্পিয়ন। আর লাল-সবুজের দল প্রথমবারের মতো খেলছে ফাইনালে। অবশ্য গোলাম রব্বানী হেলালের শিষ্যরা অতীত নিয়ে ভাবতে রাজী নয়। কারণ দল এখন আছে দুর্দান্ত ফর্মে।

    সোমবার সাফের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মালদ্বীপকে রীতিমতো উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশের মেয়েরা। সিরাত জাহান স্বপ্নার হ্যাটট্রিকে ৬-০ গোলে জয়। তারও আগে আফগানিস্তানকে হারিয়ে ৬-০ গোলে হারিয়ে এবারের সাফ মিশন শুরু হয়। দ্বিতীয় ম্যাচে ভারতের বিপক্ষে গোল শুন্য ড্র। বি’ গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই শেষ চারে ওঠে দল।

    তারপর মালদ্বীপের বিপক্ষে গোল উৎসব (৬-০)।

    সেই সাফল্য ধরে রেখে ট্রফিতেই চোখ মেয়েদের। ইতিহাস গড়েই থামতে চায় তারা। কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন মঙ্গলবার বলছিলেন, ‘দেখুন, লক্ষ্য অবশ্যই ট্রফি জয়। তবে এর আগেও একাধিকবার বলেছি, ভারত শক্তিশালী দল। কিন্তু আমরা আমাদের সেরাটা দিয়ে লড়বো।’