বিএনপিকে নির্বাচনের বাইরে রাখার ষড়যন্ত্র চলছে: মির্জা ফখরুল

0
243
print
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ‘সুষ্ঠু নির্বাচন হলে আওয়ামী লীগ ২৫টির বেশি আসন পাবে না। আর এ জন্য আওয়ামী লীগ বিএনপিকে নির্বাচনের বাইরে রাখার ষড়যন্ত্র করছে। এর ধারাবাহিকতায় বিএনপি নেতা-কর্মীদের নামে মিথ্যা মামলা ও গুম, খুন করে ভয় দেখানো হচ্ছে।’
শুক্রবার বিকেলে গাজীপুরের কাপাসিয়ার ঘাগটিয়া চালা মাঠে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহর স্মরণসভায় এসব কথা বলেন তিনি।
বিএনপি মহাসচিব আরও বলেন, ‘নির্বাচনের আগেই সংসদ ভেঙে দিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে ক্ষমতা ছেড়ে নির্বাচনকালীন সহায়ক সরকারের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করতে হবে। সব দলের জন্য সমান সুযোগ সৃষ্টির জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করতে হবে। ২০১৪ সালের মতো নির্বাচন হতে দেওয়া হবে না। বর্তমানে আওয়ামী লীগ জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। তাদের পায়ের তলায় এখন মাটি নেই।’
রোহিঙ্গা সংকট কাটাতে সরকারকে জাতীয় ঐক্য গঠনের জন্য কনভেনশন করার আহ্বান জানান ফখরুল।
হান্নান শাহকে একজন সৈনিক ও জাতীয় নেতা উল্লেখ করে ফখরুল বলেন, ‘স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব ও গণতন্ত্র রক্ষায় তিনি জিয়াউর রহমানের সঙ্গে রাজনীতি করেছেন। হান্নান শাহ ৭ নভেম্বরের সিপাহি বিপ্লবের সময় জিয়ার পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। ঠিক তেমনিভাবে ১/১১-এর সময়ও গণতন্ত্র রক্ষায় কথা বলেছেন। হান্নান শাহ দেশের দুর্যোগে, দলের দুঃসময়ে কাণ্ডারি ছিলেন।’
কাপাসিয়া উপজেলা বিএনপির সভাপতি মো. খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেনের পরিচালনায় স্মরণসভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন হান্নান শাহর ছেলে শাহ রিয়াজুল হান্নান, কেন্দ্রীয় বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ও গাজীপুর জেলা বিএনপির সভাপতি ফজলুল হক মিলন, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শামা ওবায়েদ, কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য হাসান উদ্দিন সরকার, হান্নান শাহর ছোট ভাই মোবারক শাহ।
এর আগে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল প্রয়াত নেতা হান্নান শাহর কবর জিয়ারত করেন।

LEAVE A REPLY