নেপালে যাচ্ছে রাইড শেয়ারিং পাঠাও

    দেশের বাইরে প্রথম দেশ হিসেবে নেপালে কার্যক্রম শুরু করছে রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান পাঠাও।খুব শিগগিরি প্রতিষ্ঠানটি নেপালে তাদের রাইড শেয়ারিং সেবাটি শুরু করবে। এ জন্য নেপালে কর্মী নিতে দেশটির একটি শীর্ষস্থানীয় জব পোর্টালে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিও দিয়েছে।নেপালের একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল টেকটক জানিয়েছে, অ্যাপের মাধ্যমে বাংলাদেশি রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান পাঠাও নেপালে তাদের সেবা শুরু করতে যাচ্ছে।

    পাঠাও বিষয়টি জানিয়ে তাদের সামাজিক মাধ্যম চ্যানেলে একটি ছোট প্রোমোশনাল ভিডিও পোস্ট করে। যেখানে নেপালে সেবাটি শুরু করতে যাচ্ছে বলে জানানো হয়েছে।টেকটক জানায়, পাঠাও আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যেই নেপালে তাদের কার্যক্রম শুরু করবে।চলতি বছরের এপ্রিলে ইন্দোনেশিয়াভিত্তিক রাইড শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান গো জ্যাক পাঠাওয়ে বিনিয়োগ করে। সেই বিনিয়োগের পরিমাণ কত তা নির্দিষ্ট করে কেউ না বললেও তখন বিভিন্ন মাধ্যম বলেছে এর আর্থিক মূল্য ছিল ২৫০ কোটি টাকা। যার ফলে তখনই পাঠাও ৮২০ কোটি টাকা বা ১০০ মিলিয়ন ডলারের কোম্পানিতে পরিণত হয়।

    পাঠাও বর্তমানে বাংলাদেশের ঢাকা, চট্টগ্রাম এ সিলেটে তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করছে। পাঠাও কুুরিয়ার দিয়ে শুরু করা প্রতিষ্ঠানটি এখন রাইড শেয়ারিংয়ের পাশাপাশি অনলাইনে খাবারের অর্ডার নিয়ে পৌঁছে দেবার কার্যক্রম পাঠাও ফুড পরিচালনাও করছে। এছাড়াও প্রতিষ্ঠানটি পাঠাও পে নামের একটি অনলাইন পেমেন্ট সিস্টেম নিয়ে কাজ করলেও তার অনুমোদন পায়নি।২০১৬ সালে বাইক শেয়ারিং দিয়ে যাত্রা শুর হয় পাঠাওয়ের। পরে মেখানে গাড়ি যুক্ত করা হয়। যা এখন দেশের শীর্ষ রাইড শেয়ারিং সার্ভিসে পরিণত হয়েছে।