নাটোরের সিংড়ায় যুবকের মরদেহ উদ্ধার

নাটোর প্রতিনিধি
সিংড়া উপজেলার শেরকোল ইউনিয়নের জোড়মল্লিকা ব্রীজ এলাকায় রাসেল (১৮) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে সিংড়া থানা পুলিশ। নিহত রাসেল জোড়মল্লিকা গ্রামের উবেদ আলীর ছেলে। পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরন করেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী,পারিবারিক সূত্র ও পুলিশ জানায়, মঙ্গলবার বিকেলে বন্ধুদের সাথে ফুটবল খেলা শেষে সঁন্ধ্যায় গ্রামের চা স্টলে বসে আড্ডা দেয় রাসেল। পরে রাত ৯ টার দিকে তাকে তার মা ফোন দেয়, কিন্তু অন্য কেউ রিসিভ করে কথা বলেনা এক পর্যায়ে ফোনের টাকা ও চার্জ শেষ হওয়ায় আর কথা বলা হয়নি। রাতে বৃষ্টি আসায় বিশ্বকাপ খেলা দেখে ছেলে বাড়ি ফিরে আসবে মনে করে ঘুমিয়ে পড়ে সবাই। এদিকে সকালে ছেলের ফোন বন্ধ পেয়ে আত্মীয়দের বাসায় খোঁজাখুঁজি করতে থাকে পরিবারের লোকজন।

সকাল ৯ টার দিকে গ্রামের এক রাখাল গরু নিয়ে মাঠে যাওয়ার সময় জমির ড্রেনে লাশটি পরে থাকতে দেখে সবাইকে খবর দেয়। খবর পেয়ে লাশ সনাক্ত করে কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে নিহতের পরিবার। ধারনা করা হচ্ছে তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে সেখানে ফেলে রাখা হয়েছে। রাসেল গত বছর জোড়মল্লিকা নিংগইন উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষা অংশগ্রহণ করেছিল। কিন্তু কৃতকার্য না হওয়ায় এ বছর আবারো কারিগরি স্কুলে ভর্তি হয়। রাসেলর বড় ভাই বিদেশে থাকে।

রাসেলের বাবা উবেদ আলী জানায়, সে রাতে রাসেলের ফোনে কয়েকবার ফোন দিলে অন্য কেউ রিসিভ করলেও কথা বলেনি। এক পর্যায়ে ফোনের টাকা ও চার্জ শেষ হওয়ায় আর কথা বলা হয়নি। আমি আমার ছেলের হত্যাকারীদের বিচার চাই।

শেরকোল ইউপি চেয়ারম্যান লুৎফুল হাবিব রুবেল জানান, ঘটনা শুনে সেখানে যাই, নিহতের পরিবারকে সান্তনা দিয়েছি। সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে। আশা করি দ্রুত হত্যার রহস্য বেড়িয়ে আসবে।

সিংড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে লাশটি উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। তদন্ত করে ও মরদেহের ময়না তদন্ত শেষে বিস্তারিত জানা যাবে।