ধর্ষণের শিকার ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী।

চকলেট কিনে দেওয়ার লোভ দেখিয়ে (১৩) বছরের এক শিশু শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে এক যুবকের বিরুদ্ধে। গতকাল শনিবার রাতে সাভারের চাঁপাইন তালতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে সাভার মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

ধর্ষণের শিকার ওই শিশুটি মা-বাবার সঙ্গে তালতলা এলাকার একটি বাড়িতে ভাড়া থাকে। সে স্থানীয় একটি স্কুলের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী। তাদের বাড়ি জামালপুর জেলার মেলান্দ থানায় পচাবোয়ালা গ্রামে।

এলাকাবাসী জানায়, গতকাল রাতে বাসায় কেউ না থাকায় প্রতিবেশী বখাটে যুবক শাহিন মিয়া (১৮) শিশুটিকে চকলেটের লোভ দেখায়। পরে তাকে চকলেট কিনে দেওয়ার কথা বলে নিজের ভাড়া করা ঘরে নিয়ে শিশুটিকে ধর্ষণ করেন। পরে শিশুটির চিৎকারে ধর্ষণকারী যুবক কৌশলে পালিয়ে যায়।

ওই বখাটে যুবক শাহিন দীর্ঘদিন ধরে রাস্তায় বিভিন্ন স্কুল ছাত্রীদের উত্ত্যক্ত করে আসছিল বলেও অভিযোগ এলাকাবাসীর।

এদিকে সাভারের ডগরমোড়া এলাকায় আট বছরের আরেক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে রাসেল (২৪) নামে এক যুবককে আটক করেছে সাভার মডেল থানা পুলিশ।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সাভার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মহসিনুল কাদির জানান, ধর্ষণের শিকার শিশু দুটিকে উদ্ধার করে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় সাভার মডেল থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।