আসন্ন তিন সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র এবং জাতীয় সংসদের একটি আসনের উপ-নির্বাচনের প্রার্থী চূড়ান্ত করেছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। মনোনীত প্রার্থীরা হলেন- রাজশাহীতে এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন, সিলেটে বদরুদ্দিন কামরাম ও বরিশালে সেরনিয়াবাত সাদেক আবদুল্লাহ।

এছাড়া কুড়িগ্রাম-৩ (উলিপুর উপজেলা একটি ও চিলমারীর ২টি ইউনিয়ন বাদে) আসনের উপ-নির্বাচনের জন্য এম এ মতিনকে দলীয় মনোনয়ন দেয়া হয়। গত ১০ মে জাতীয় পার্টি থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য মাঈদুল ইসলামের মৃত্যুর কারণে কুড়িগ্রাম-৩ সংসদীয় আসনটি খালি হয়।

আওয়ামী লীগের পার্লামেন্টারি বোর্ড ও স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ড-এর এক যৌথ সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। দলের সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাঁর সরকারি বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত এ সভায় সভাপতিত্ব করেন।

এ ছাড়া সভায় ১০টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, তিনটি উপজেলা পরিষদের মেয়র ও ৫টি মিউনিসিপ্যালিটির মেয়র পদেও দলের প্রার্থী চূড়ান্ত করা হয়েছে।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী রাজশাহী, সিলেট ও বরিশাল সিটি করপোরেশন নির্বাচন হবে আগামী ৩০ জুলাই। প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন ২৮ জুন, মনোনয়নপত্র বাছাই হবে আগামী ১ ও ২ জুলাই। প্রার্থিতা প্রত্যাহার করার শেষ দিন ৯ জুলাই।

এদিকে কুড়িগ্রাম-৩ আসনে উপ-নির্বাচনের তফসিল অনুযায়ী ভোটগ্রহণ হবে আগামী ২৫ জুলাই। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ২৪ জুন। ২৬ জুন মনোনয়নপত্র বাছাই করা হবে, আগামী ৩ জুলাই মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিন।