গাজর দৃষ্টিশক্তি বাড়ানোর পাশাপাশি স্ট্রোকের ঝুঁকি কমায়।

গাজর শরীরের জন্য খুবই উপকারী। এটা রান্নার চেয়ে কাঁচা খাওয়াই উত্তম। এজন্য কাঁচা গাজর দিয়ে সালাদ তৈরি করে খাওয়াটাই বেশি প্রচলিত। অনেকে আবার আস্ত গাজর দিব্যি খেয়ে ফেলেন। পুষ্টিগুণে সমৃদ্ধ গাজরে রয়েছে ভিটামিন এ, ভিটামিন কে, ভিটামিন সি, ফাইবার, অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, বিটা ক্যারোটিন ও পটাসিয়াম, যা ক্ষেত্রবিশেষ দারুণ ওষুধের ভূমিকা পালন করে। এটি দৃষ্টিশক্তি বাড়ানোর পাশাপাশি স্ট্রোকের ঝুঁকি কমায়।

আসুন জেনে নিই গাজর থেকে কি কি উপকার পাবেন

– যদি চোখের সমস্যা থাকে তাহলে গাজর খাওয়া শুরু করে দিন। কারণ গাজর দৃষ্টিশক্তি বাড়ায়।

– গাজরে আছে বিটা ক্যারোটিন, যা আমাদের লিভারে গিয়ে ভিটামিন-এ তে বদলে যায়। পরে সেটি চোখের রেটিনায় গিয়ে চোখের দৃষ্টিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে, সেই সঙ্গে রাতের বেলায় অন্ধকারেও চোখে ভালো দেখার জন্য দরকারি এমন এক ধরনের বেগুনি পিগমেন্টের সংখ্যা বাড়িয়ে দৃষ্টিশক্তি ভালো রাখতে সাহায্য করে।

– এতে আছে ফ্যালকেরিনল যা অ্যান্টিক্যান্সার উপাদানগুলোকে পূর্ণ করে। ফলে গাজর খেলে ব্রেস্ট, কোলন, ফুসফুসের ক্যান্সারের ঝুঁকি কমে। গাজর শুধু শরীরের জন্য ভালো তাই নয়, এটি অ্যান্টি এজিং উপাদান হিসেবেও কাজ করে। এতে যে বিটা ক্যারোটিন আছে তা অ্যান্টি অক্সিডেন্ট হিসেবে কাজ করে শরীরের ক্ষয়প্রাপ্ত কোষগুলোকে পরিপূর্ণতা দেয়।

তবে যাদের ইউরিক এসিডের সমস্যা রয়েছে তারা অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে গাজর খাবেন।