Smiley face

মোনাসিফ ফরাজী সজীব,মাদারীপুর প্রতিনিধি;
পরকীয়া প্রেমে বাধাঁ দেয়ার জের ধরে মাদারীপুরের কালকিনিতে সাথী বেগম(১৮) নামের এক নববধুকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে তার স্বামীর পরিবারের বিরুদ্ধে। তবে শশুরবাড়ির লোকজন সাথী বেগম আত্মহত্যা করেছে বলে এলাকায় প্রচার করছে। এ দিকে ঘটনার পর থেকেই ওই নববধুর শশুর বাড়ির লোকজন পলাতক রয়েছে। এ ঘটনাটি ঘটেছে আজ রোববার সন্ধ্যায় কালকিনি পৌর এলাকার জনাদরদী গ্রামের।
খবর পেয়ে থানা পুলিশ সাথী বেগমের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে ।
পুলিশ ও নিহতের পরিবার সুত্রে জানাগেছে, পৌর এলাকার জনাদরদী গ্রামের অমর সরদারের মেয়ে সাথী বেগমের সাথে উপজেলার বালীগ্রামে এলাকার ধুলগ্রামের ছত্তার হাওলাদারের ছেলে রেজাউল হাওলাদারের দেড় মাস আগে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে রেজাউল বিভিন্ন বিষয় নিয়ে স্ত্রী সাথী বেগমের সাথে খারাপ আচরন করে আসত বলে নিহতের পরিবার জানায়। কিন্তু হাঠাৎ করে আজ রোববার সন্ধায় সাথী বেগমের নিজ ঘরের আড়ার সাথে ঝুলান্ত লাশ দেখতে পায় স্থানীয় লোকজন। পরে ডাসার থানা পুলিশ খবরে পেয়ে সাথী বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যান। অপরদিকে ঘটনার পর থেকেই নিহত সাথী বেগমের শশুর বাড়ির লোকজন পালিয়ে যায়।
নিহতের ভাই আলামিন বলেন, আমার বোন তার স্বামী রেজাউলের পরকিয়া বাঁধা দেয়ায় আমার বোনকে হত্যা কওে লাশ ঝুলিয়ে রাখে। আমরা এর সঠিক বিচার চাই॥
এ ব্যাপারে ডাসার থানার ওসি এমদাদুল হক বলেন, নিহত নববধুর গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে সাথী বেগমের মৃত্যু হত্যা না আত্মহত্যা ময়না তদন্তের আগে কিছুই বলা যাবে না।

LEAVE A REPLY